• মামার বাড়িতে এসে জলে তলিয়ে গেল এক শিশু
  • আজ মহাষষ্টি, দেবীর অধিবাস
  • পুজোতে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা রাজধানী আগরতলায়
  • রক্তদান শিবির অনুষ্ঠিত শান্তিবাজারে
  • গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু, তদন্তে পুলিশ
  • ম্যালেরিয়ায় মারণ থাবায় এক শিশুর মৃত্যু
  • নর্থ ইস্ট ফিনান্স ব্যাঙ্কের মহিলা ম্যানেজারের বিরুদ্ধে ১৭ লক্ষ টাকা গায়েবের অভিযোগ
  • চতুর্থীতেই জনজুয়ারে ভাসল আগরতলা
  • আধুনিকতার সাথে প্রযুক্তির সংমিশ্রণ হলে ত্রিপুরাকে মডেল রাজ্য হিসাবে গড়ে তুলতে পারবো: মুখ্যমন্ত্রী
  • রেলস্টেশন থেকে গাঁজা উদ্ধার
  • দুর্গাপূজা উপলক্ষে নতুন সাজে উঠেছে দুর্গাবাড়ি
  • জোরপূর্বক অর্থ আদায়ের অভিযোগে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে মামলা
  • বগাফা ব্লকের ত্রিস্তর পঞ্চায়েত নির্বাচনে ৭ প্রতিনিধিদের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান
  • আগরতলা ১৪ অক্টোবর (এ.এন.ই ): শনিবার বগাফা ব্লকের পঞ্চায়েত সমিতি হল রুমে ত্রিস্তর পঞ্চায়েত নির্বাচনে নির্বাচিত ৭ জন প্রতিনিধিদের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। জানা গেছে, শপথ বাক্য পাঠ করান জেলা পঞ্চায়েত অফিসার কমিসনার কলই। জানা গেছে, বগাফা ব্লকের পঞ্চায়েত সমিতির চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হন দেবাশীষ মজুমদার এবং ভাইস চেয়ারম্যান হিসাবে ত্রিকেন্দ্র ত্রিপুরা নির্বাচিত হয়েছেন। জানা গেছে, শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, সাব্রুমের বিধায়ক শংকর রায়, বগাফা ব্লকের বিডিও প্রদীপ সরকার, জেলা পঞ্চায়েত অফিসার কমিসনার কলই প্রমুখ। শপথ বাক্য পাঠ করার পর দেবাশিষ বাবু জানায়, শপথ বাক্য পাঠ করার পর দেবাশীষ বাবু জানায় তিনি দশমত নির্বিশিষে সকলের উন্নয়নের জন্য কাজ করবেন।
  • রাজ্যের আইন শৃঙ্খলার পরিস্থিতি নিয়ে পুলিশ মহানির্দেশকের সঙ্গে রুদ্ধদ্বার বৈঠক মুখ্যমন্ত্রীর
  • শারদোৎসবের প্রাক মুহূর্তে বোমা বিস্ফোরণে কেপে উঠল আসাম, সর্তকতা জারি রাজ্যেও
  • শারদ উৎসবে রাজ্যবাসীর উদ্দেশ্যে মুখ্যমন্ত্রীর শুভেচ্ছা
  • শ্রীনগর থেকে ৬ জুয়ারি আটক
  • চকোলেটের মণ্ডপ এমবিবি ক্লাবে
  • কুখ্যাত নেশা কারবারি গ্রেপ্তার
  • রেলে কাটা পরে যুবকের মৃত্যু
  • ধলাইয়ে প্রতিবন্ধী পুনর্বাসন কেন্দ্রে প্রবীণদের চিকিৎসা পরিষেবা
  • পূর্বাশার আর্থিক আয় বাড়াতে সরকারের নয়া সিদ্ধান্ত
  • শহরের সাথে পাল্লা দিয়ে মহকুমার পুজো প্রস্ততি চলছে জোর কদমে
  • অপরাধ দমনে ক্রাইম ব্রাঞ্চকে আধুনিকরণের উদ্যোগ রাজ্য সরকারের

ইক্সক্লোসিভ ভিডিও

ঘরেই বানিয়ে নিন লাইটিং লেন্টার্ন

ত্বকের উজ্বলতার জন্য ২০টি টিপস

ডেনমার্কে তৈরি হচ্ছে বিশ্বের প্রথম লম্বা ডিম! দেখুন কীভাবে লম্বা ডিম পাড়ে মুরগী

বিজ্ঞাপণ ব্যানার

বিজ্ঞাপণ ব্যানার

বিশ্ব খবর

00310
রাফাল প্রশ্নে এরিয়ে গেলেন ফ্রান্স প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল মাকরঁ

ফ্রান্স ২৭ সেপ্টেম্বর (এ.এন.ই ): রাফাল বিতর্কে প্রশ্নের জবাব দিলেন তবে, কৌশলে মূল উত্তরটি এড়িয়ে গেলেন ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল মাকরঁ । মঙ্গলবার নিউ ইয়র্কে রাষ্ট্রসঙ্ঘের প্রধান কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে এক সাংবাদিক বৈঠকে মাকরঁকে প্রশ্ন করা হয়, রাফাল চুক্তির বিষয়ে ফ্রান্স সরকার বা যুদ্ধবিমান প্রস্তুতকারক সংস্থা দ্যাসো-র কাছে অনিল অম্বানির সংস্থার নাম ভারত সুপারিশ করেছিল কি না? এই প্রশ্নের জবাবে মাকরঁ সরাসরি উত্তর দেননি। তিনি বলেন, “এ বিষয়ে বেশি কিছু বলতে পারব না। রাফাল চুক্তি যখন হয়, তখন প্রেসিডেন্ট পদে আমি ছিলাম না।” এর পর মাকরেঁর যুক্তি, আমি এইটুকু নিশ্চিতভাবে জানি, রাফাল চুক্তি ছিল দুই সরকারের অভ্যন্তরীন চুক্তি। যদি এই বিষয়ে কিছু বলতেই হয়, তা হলে সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী মোদীর করা মন্তব্যের কথা উল্লেখ করব। তবে, প্রধানমন্ত্রী সে দিন কী বলেছিলেন, সে বিষয়ে খোলসা করেননি মাকরঁ। রাফাল চুক্তিকে একটি গুরুত্বপূর্ণ কৌশলগত চুক্তি বলে উল্লেখ করেন ফ্রান্স প্রেসিডেন্ট। তিনি জানান, এই চুক্তির সঙ্গে কোনও বাণিজ্যিক সংস্থা জড়িয়ে নেই। দুই দেশের প্রতিরক্ষা মন্ত্রক এবং সেনাবাহিনীর সঙ্গে চুক্তি হয়েছে। ভারতের প্রধানমন্ত্রী এই পরিস্থিতে যা বলেছিলেন, সেটাই গুরুত্ব দিতে চাই। উল্লেখ্য, গত ২১ সেপ্টেম্বর ফ্রান্সের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট ফ্রাঁসোয়া ওলাঁদ ভারতের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক মন্তব্য করেন। ওলাঁদ বলেন, দ্যাসো সংস্থার কাছে ভারতই অনিল অম্বানির সংস্থার নাম সুপারিশ করেছিল। এ বিষয়ে ফ্রান্স সরকারের কোনও ভূমিকাই ছিল না। ওলাঁদের এই মন্তব্যে রীতিমতো পরমাণু বিস্ফোরণ ঘটে দেশের রাজনীতিতে। কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী প্রথম থেকেই দাবি জানিয়েছিলেন, অনিল অম্বানির সংস্থাকে লাভবান করতেই রাফাল চুক্তির অংশীদার করে মোদী সরকার। এমন আবহে ওলাঁদের মন্তব্যে তীব্র অস্বস্তিতে পড়ে বিজেপি। তবে, তড়িঘড়ি ফ্রান্স সরকার এবং দ্যাসো পৃথকভাবে বিবৃতি দিয়ে জানিয়ে দেয়, অংশীদার হিসাবে অম্বানির সংস্থাকে বেছে নিতে ভারত সরকারের কোনও ভূমিকা ছিল না। পরবর্তীকালে ওলাঁদ তাঁর মন্তব্য থেকে পিছু হঠেন। জানা গিয়েছে ওলাঁদের মন্তব্যে ভারত এবং ফ্রান্সের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কে প্রভাব পড়তে পারে বলে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে মাকরঁ সরকার। ফ্রান্সের বিদেশমন্ত্রকের তরফে স্পষ্ট জানানো হয়, ওলাঁদের মন্তব্যের জেরে দুই দেশের মধ্যে বিভ্রান্তি ছড়াতে পারে। এর ফলে কোনও দেশই আক্ষরিক অর্থে লাভবান হবে না


Copyright © 2017 আগরতলা নিউজ এক্সপ্রেস. All Rights Reserved.