LATEST UPDATE

বগাফায় মাশরুম চাষ করে জীবিকা নির্বাহ করছে নারায়ণ রুদ্রপালে পরিবার

শান্তিরবাজার (নিজেস্ব প্রতিনিধি) ১৩ জুন (এ.এন.ই): বগাফা কৃষি দপ্তরের সহযোগিতায় প্রশিক্ষণ নিয়ে মাশরুম চাষ করে স্বাবলম্বী হয়েছে এক পরিবার। 


দক্ষিণ ত্রিপুরার শান্তির বাজার মহকুমার অন্তর্গত জোলাইবাড়ীর পশ্চিম পিলাকের বাসিন্দা নারায়ণ রুদ্রপাল গত বছর খানিক আগে এই মাশরুম চাষ শুরু করেন। এখন বর্তমানে এই মাশরুম চাষ করে নারায়ণ রুদ্রপাল, তার ভাই, মা, বাবা পরিবারের সকলকে নিয়ে স্বাচ্ছন্দে দিন কাটাচ্ছেন। এইদিন নারায়ণ রুদ্রপালের বাড়ীতে মাশরুম চাষ পরিদর্শনের জন্য ছুটে যান বগাফা কৃষি দপ্তরের কৃষি তত্বাবধায়ক দেবাশীষ পাল মহাশয়।  মাশরুম চাষ সম্পর্কে নারায়ণ রুদ্রপালের ভাই হারাধন পাল এর কাছ থেকে জানাযায় অর্থ উপার্জনের জন্য নারায়ণ রুদ্রপাল নিজ বাসভবনত্যাগ করে ত্রিপুরার পার্শ্ববর্তী রাজ্য আসামে চলেযায়।  সেখানে গিয়ে তার বন্ধু বান্ধবরা মাশরুম চাষ দেখে খুবই উৎসাহিত হয়। পরবর্তী সময় গত একবছর আগে নারায়ণ রুদ্রপাল জোলাইবাড়ী নিজ বাসভবনে এসে মাশরুম চাষের পরামর্শের জন্য বগাফা কৃষিদপ্তরের নিকট যান।  নারায়ণ রুদ্র পালের উৎসাহ দেখে বগাফা কৃষি দপ্তর থেকে নারায়ণ রুদ্রপালকে মাশরুম চাষের প্রশিক্ষণ দেন। কৃষিদপ্তরের প্রশিক্ষণ পেয়ে নারায়ণ রুদ্রপাল বর্তমানে মাশরুম চাষ করে প্রতিমাসে ১৫ থেকে ১৬ হাজার টাকার মাশরুম বিক্রি করেন বলে জানাযায়।  বর্তমানে অধিক গরমে এই মাশরুম চাষ কিছুটা কম আছে বলে জানা যায়।  হারাধন পাল সংবাদমাধ্যমের সামনে এও জানান উদের এই মাশরুম চাষকে দেখে গ্রামের অন্যান্য লোকজনও উৎসাহিত হয়ে উদের কাছ থেকে মাশরুম চাষের প্রশিক্ষণ নিয়ে যাচ্ছেন ও তার সঙ্গে মাশরুমের বীজ নিয়ে যাচ্ছেন।  বর্তমানে এই মাশরুম চাষের মধ্যদিয়ে উদের পরিবারের সকল লোকজন আনন্দের সহিত কোনোপ্রকার দিন কাটাচ্ছেন বলে জানা যায়।  অপরদিকে এই দিন মাসরুম চাষ পরিদর্শনে ছুটে গিয়ে এস এ দেবাশিষ পাল সংবাদমাধ্যমের সামনে নারায়ণ রুদ্র পালের প্রশিক্ষণ সম্পর্কে কিছু তথ্য তুলে ধরেন।  তিনি জানান এই মাশরুম চাষ করে এখন অধিক গরমের মধ্যেও নারায়ন রুদ্রপাল দৈনিক ৮ থেকে ১০ কেজি মাশরুম বাজারজাত করেন।  তিনি জানান প্রশিক্ষণের পাশাপাশি মাশরুম চাষের জন্য নারায়ণ রুদ্রপালকে প্রথম অবস্থায় কিছু মাশরুমের বীজ ও সাবসিডির মাধ্যমে স্প্রে মেশিন প্রদান করা হয়। দেবাশিষ পাল সকলের উদ্দেশ্যে বলে কৃষি কাজের পাশাপাশি এই মাশরুম চাষের মধ্যদিয়েও স্বাবলম্বী হওয়া সম্ভব যা নারায়ণ রুদ্রপাল করে দেখিয়েছেন।


আরো পড়ুন

Advertisement