দম্পতি খুনের রেশ কাটতে না কাটতেই ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই আবার খুন কৈলাসহরে

LATEST UPDATE

দম্পতি খুনের রেশ কাটতে না কাটতেই ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই আবার খুন কৈলাসহরে

আগরতলা ৫ ফেব্রুয়ারি (এ.এন.ই): দম্পতি খুনের রেশ কাটতে না কাটতেই ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই আবার খুনের ঘটনা ঘটল  কৈলাসহরে। জানা গেছে, সোমবার কৈলাসহর থানার অন্তর্গত বিলাশপুর গ্রামের ৬ নং ওয়ার্ডের পশ্চিম বলেহরের বাসিন্দা পরিতোষ দাসের মৃতদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। পুলিশ জানিয়েছে, মৃত ব্যক্তির গোপাঙ্গে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তাছাড়া তার বুকে এবং মুখেও আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। যদিও এখনো পর্যন্ত পুলিশ এই ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে কাউকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি। তবে পুলিশের তদন্ত শুরু হয়ে গেছে। প্রাথমিক তদন্তের শেষে পুলিশ জানিয়েছে এটি একটি পরিকল্পিত খুন। তবে এই খুনের পেছনে কোন শত্রুতা আছে কিনা সে বিষয়ে পুলিশ এখনো কিছু জানায়নি। ঘটনার বিবরণে জানা গেছে, গত রবিবার রাতে পাশের বাড়ির কীর্তনে গিয়েছিলেন পরিতোষ বাবু। কিন্তু রাতে তিনি আর বাড়িতে ফিরেননি। অথচ পাশের বাড়ির মালিক রমেন্দ্র বাবু জানিয়েছে, পরিতোষ বাবু ১০টা সময় তার বাড়ি থেকে বেরিয়ে যান। এদিকে পরিতোষ বাবু বাড়ি না ফেরায় তার পরিবারের লোকেরা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েন। শুরু হয় খোঁজাখুঁজি। কিন্তু কোথায় পরিতোষ বাবুর খোঁজ পাওয়া যায়নি। শেষ পর্যন্ত সোমবার পরিতোষের মেয়ে পার্শ্ববর্তী একটি পুকুরে ভাসমান অবস্থায় একটি লাস দেখতে পেয়ে দৌরে বাড়িতে এসে খবর দেয়। মেয়েটির চিৎকারে আশপাশের লোকজনেরাও ছুটে আসেন। এরপর মৃতদেহ জল উদ্ধার করে আনার পর দেখতে পায় মৃতদেহটি আর কেউ নয় পরিতোষের। খবর দেওয়া হয় পুলিশকে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে ছুটে আসে এবং মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য পাঠিয়ে দেয়। এদিকে  পরিতোষের লাস দেখে বাড়ির লোকজন কান্নায় ভেঙে পড়েন। মৃতদেহ উদ্ধারের পর পরিতোষের পরিবারের লোকেরা অভিযোগ করেন ঘটনাটি খুন। এদিকে কে বা কারা এই হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িত আছে সে সন্দেহে পুলিশ এখনো পর্যন্ত কাউকেই গ্রেপ্তার করেনি। গত ২৪ ঘণ্টায় কৈলাসহরে পর পর দুটি খুনের ঘটনায় বিভিন্ন মহল থেকে আইনশৃঙ্খলার অবনতির প্রশ্ন তোলা হয়। 

আরো পড়ুন

Advertisement