শান্তিরবাজারে এক ব্যক্তির ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার
শান্তিরবাজারে এক ব্যক্তির ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার

শান্তিরবাজার (নিজেস্ব প্রতিনিধি) ২৫ মার্চ (এ.এন.ই): রোগের জ্বালা সহ্য করতে না পেরে আত্ম হত্যার পথ বেছে নিলো নরেন্দ্র পাল  (৬০ ) নামে এক ব্যক্তি। 


ঘটনার বিবরণে জানা গেছে, শান্তির বাজার মহকুমার অন্তর্গত কাঞ্চন নগর দক্ষিণ পাড়ার বাসিন্দা নরেন্দ্র পাল দীর্ঘদিন রোগাক্রান্ত হয়ে নানান সমস্যায় ভুগছিলেন। সোমবার সকালে ঐ এলাকার লোকজন একটি ব্রিজে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পান নরেন্দ্র পালকে।  মৃতদেহ ঝুলন্ত অবস্থায় দেখে এলাকার লোকজনেরা মৃতের পরিবারে ও শান্তির বাজার থানায় খবর দেন।  ঘটনার খবর পেয়ে শান্তির বাজার থানায় কর্মরত পুলিশ ঘটনাস্থলে ছুটে যায়। ঘটনাস্থলে পৌঁছে তারা মৃতদেহ নামিয়ে এনে ময়না তদন্তের জন্য শান্তির বাজার জেলা হাসপাতালে নিয়ে আসেন।  এদিন নরেন্দ্র পালের ছেলে জানিয়েছেন, উনার পিতা বিলোনিয়া প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে হেল্পারের কাজ করতো।  দীর্ঘ ২ বছর যাবৎ নরেন্দ্র পাল নানান রোগে রোগাক্রান্ত হয়ে বিছানায় শয্যাশায়ী ছিলেন। কর্মক্ষমতা একেবারেই ছিল না বলে নরেন্দ্র পালের ছেলে জানায়। নরেন্দ্র পালের ছেলে জানিয়েছেন বিগত বেশ কয়েক দিন ধরে তার পিতা কিছু কিছু করতেন। হঠাৎ করে সোমবার সকালে  তার পিতার মৃতদেহ দেহ তিনি হতবাক হয়ে পরেন। এদিকে,  এলাকাবাসীরা জানান, সম্ভবত রোগের জ্বালা সহ্য করতে না পেরে নরেন্দ্র পাল আত্ম হত্যার পথ বেছে নিয়েছেন।  আসলে কি এটি হত্যা না আত্মহত্যা এই নিয়ে নানান প্রশ্ন জাগছে এলাকার মানুষদের মনে। যদিও পুলিশ তদন্ত শুরু করে দিয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, এখনো কিছুই বলা সম্ভব নয়। ময়না তদন্তের রিপোর্ট আসার পরই আসল সত্য জানা যাবে। নরেন্দ্র পালের এই অস্বাভাবিক মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

আরো পড়ুন

Advertisement