দীর্ঘ এক মাস যাবৎ শান্তিরবাজার জেলা হাসপাতালে চক্ষু পরিষেবা বন্ধ
দীর্ঘ এক মাস যাবৎ শান্তিরবাজার জেলা হাসপাতালে চক্ষু পরিষেবা বন্ধ

শান্তিরবাজার (নিজেস্ব প্রতিনিধি)  ২৫ মার্চ (এ.এন.ই): দীর্ঘ এক মাস ধরে শান্তিরবাজার জেলা হাঁসপাতালে চক্ষু পরিষেবা বন্ধ হয়ে আছে। পূর্বে শান্তিরবাজার জেলা হাসপাতালে চক্ষু ডাক্তার হিসাবে নিযুক্ত ছিলেন উমাকান্ত আচার্যি। বিগত একমাস আগে উমাকান্ত ডাক্তারবাবুকে শান্তিরবাজার জেলা হাঁসপাতাল থেকে বদলি করা হয়। কিন্তু উমাকান্তের পরিবর্তে এখনো পর্যন্ত শান্তিরবাজার জেলা 'হাঁসপাতালে চক্ষু ডাক্তার নিয়োগ করা হয়নি। যার ফলে কষ্টের সন্মুখিন হতে হচ্ছে রোগীদের বলে একথা জানান শান্তিরবাজারের জেলা হাসপাতালের এম এস জে এস রিয়াং। চক্ষু ডাক্তারের পাশাপাশি তিনি এও জানান বিগত অনেক বছর ধরে জেলা হাঁসপাতালে আল্ট্রা সোনোগ্রাফি মেশিন চালানোর মতো লোকজনই নেই। যার ফলে গর্ভবতী মায়েদের বিশেষ অসুবিধের সন্মুখিন হতে হচ্ছে। শান্তিরবাজার জেলা হাঁসপাতাল হবার পরও সকল কে সনোগ্রাফির জন্য উদয়পুর ছুটে যেত হত। অপরদিকে দক্ষিণ  ত্রিপুরা বিলোনিয়া মহকুমা হাঁসপাতালেও রয়েছে সোনোগ্রাফি পরিষেবা কিন্তু শান্তিরবাজার জেলা হাঁসপাতাল হওয়া সত্ত্বেও এই পরিষেবা থেকে বঞ্চিত শান্তিরবাজারের লোকজন। জানা গেছে, শান্তিরবাজারের লোকজনদের একটাই দাবি এই জেলা হাঁসপাতালের মান উন্নয়নে স্বাস্থ্যমন্ত্রী  যেন বিশেষ কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করে। 


আরো পড়ুন

Advertisement