LATEST UPDATE

বিজেপি'র নির্বাচনী ইস্তেহার প্রকাশ

দিল্লি ৮ এপ্রিল (এ.এন.ই): সোমবার নির্বাচনী ইস্তেহার প্রকাশ করলো ভারতীয় জনতা পার্টি। সাংবাদিক সন্মেলনে আজ সকালে ইস্তেহার প্রকাশ করলো বিজেপি সরকার। জানা গেছে, নির্বাচনী প্রতিশ্রুতির থেকে এই ইস্তেহারকে ‘সংকল্প পত্র বলে দাবি করছে গেরুয়া শিবির। ইস্তেহার পত্রে সুষমা স্বরাজ, অরুণ জেটলি, রাজনাথ সিং, অমিত শাহ বললেন, 


সুষমা স্বরাজ 


কংগ্রেসের ইস্তেহারে ‘দেশদ্রোহীরা’ ইন্ধন পাচ্ছে, আর আমাদের সংকল্প পত্রে সন্ত্রাসবাদ সমূলে উত্খাত করার লক্ষ্য নিয়েছে।


পাঁচ বছরে মোদীর বিদেশ সফরের এই সফলতা এসেছে।


ইসলামিক দেশেও পাকিস্তানকে একঘরে করে দেওয়া হয়েছে।


শুধু বিশ্বে নয়, ইসলামিক দেশগুলিতেও ভারত জায়গা করে নিয়েছে।


মোদীর জমানায় আরবের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক সাফল্যের সঙ্গে হয়েছে।


পাঁচ বছরে বিশ্বের বড় পাঁচ সম্মান পেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।


১৪ এইমস, ১১৮ মেডিক্যাল কলেজ এবং দেড় লক্ষ স্বাস্থ্য কেন্দ্র তৈরি হয়েছে।


১২৭ মোবাইল প্রস্তুতকারী কারখানা তৈরি হয়েছে।


১লক্ষ১৬ হাজার গ্রামে অপটিক ফাইবারের সঙ্গে সংযুক্তি করা হয়েছে।


প্রতি দিন ২৯ কিলোমিটার হাইওয়ে তৈরি হয়।


গত ৫ বছরে যা প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল, তা থেকে বেশি করেছে এই সরকার।


বাকি রাজনৈতিক দল ‘ঘোষণা পত্র’ প্রকাশ করেছে। কিন্তু একমাত্র বিজেপি ‘সংকল্প পত্র’ প্রকাশ করেছে।


অরুণ জেটলি 


একশো লক্ষ কোটি টাকা খরচ করা হয়েছে পরিকাঠামো ক্ষেত্রে।


কর থেকে আমজনতাকে মুক্তি দিয়ে ক্রয়ক্ষমতা বাড়ানো হয়েছে।


মুদ্রাস্ফীতি ২ শতাংশের নীচে এসেছে এই সরকারের জমানায়।


১৯৪৭ সালের পর সবচেয়ে ভাল পরিষেবা দিয়েছে এই সরকার।


সন্ত্রাসবাদ উত্খাতে এই সরকারের নয়া নীতি গ্রহণ করায় বিশ্বের সমর্থনও মিলেছে


টুকরো টুকরো ভাবনায় তৈরি হয়নি এই সংকল্প পত্র


স্থায়ী সরকারের গড়ার লক্ষ্যে এই ইস্তেহার তৈরি করা হয়েছে।


রাজনাথ সিং 


তিন তালাক নিয়ে আইন বানিয়ে মুসলিম মহিলাদের সম্মান সুনিশ্চিত করা হবে।


আদালতে কাজকর্ম ডিজিটাল করার লক্ষ্যে থাকবে।


প্রত্যেক ব্যক্তিকে ৫ কিলোমিটারের মধ্যে ব্যাঙ্কিং সুবিধা হবে।


রফতানি দ্বিগুণ করার লক্ষ্য থাকবে।


৭৫ মেডিক্যাল কলেজ তৈরি করা হবে।


২০২২ সালে অধিকাংশ রেল লাইন ব্রডগেজে নিয়ে আসা হবে।


দেশের প্রত্যেক ঘরে শৌচালয়, বিদ্যুত এবং পরিস্রুত পানীয়ের ব্যবস্থা করা হবে।


সব গরিবকে রান্নার গ্যাস দেওয়া হবে।


শিক্ষাক্ষেত্রে আসন সংখ্যা বাড়ানো হবে। ইঞ্জিনিয়ারিং এবং আইনের আসন সংখ্যা বাড়ানো হবে।


সেচ ব্যবস্থা সম্পূর্ণ করা হবে।


২০২২ সালে নতুন ভারত তৈরি করতে ৭৫টি পদক্ষেপ করা হয়েছে।


বিধবা পেনশন, অনুদান-সহ যে কোনও সরকারি সাহয্য সরাসরি ব্যাঙ্কে অর্থ দেওয়া হবে।


দেশের ছোটো ব্যবসায়ী বা দোকানদারকে ৬০ বছরের পর পেনশন দেওয়া হবে


রাষ্ট্রীয় বাণিজ্য আয়োগ তৈরি হবে, যা প্রথম।


৬০ বছর পর কৃষকদের পেনশন দেওয়া হবে।


সম্মান নিধি প্রকল্পে ২ হেক্টর নয় সব কৃষককে ৬ হাজার টাকা দেওয়া হবে।


এক  লক্ষ ক্রেডিট কার্ডের ঋণ মিলছে তার সুদ শূন্য আনা হবে।


সৌহার্দ্য বাতাবরণে তৈরি করা হবে রামমন্দির নির্মাণ


অনুপ্রবেশকারী নিয়ে আইন এনে রক্ষা করার চেষ্টা হবে।


জঙ্গিবাদ উত্খাত করতে রেয়াত করা হবে না।


স্বাধীনতার ৭৫ বছর পর নতুন ভারত তৈরি করার প্রয়াস নেওয়া হয়েছে গত ৫ বছরের।


সোশ্যাল মিডিয়ার কাছ থেকেও মতামত নেওয়া হয়েছে।


৪ হাজারের বেশি জায়াগা থেকে নাগরিকের মতামত জানার চেষ্টা করা হয়েছে।


জাতীয় নিরাপত্তার উপর বিশেষ নজর দেওয়া হয়েছে।


২০২৪ সালের মধ্যে বিশ্বের দ্রুততম অর্থনীতির দেশ তৈরি করার সংকল্প নেওয়া হয়েছে।


একশো তিরিশ কোটির মন কি বাত শোনা হয়েছে এই সংকল্প পত্রে


বিজেপির ইস্তেহার প্রকাশ করলেন নরেন্দ্র মোদী, অমিত শাহ, রাজনাথ সিং-সহ অন্যান্য শীর্ষ নেতারা


অমিত শাহ 


দেশের অর্থনীতিকে সঠিক পথে নিয়ে আসার কাজ করেছে মোদী সরকার।


দ্রুততম অর্থনীতির দেশে হিসাবে বিশ্বের ৫ নম্বর স্থানে উঠে এসেছে।


মোদীর জন্য একশো কোটির দেশ সুরক্ষিত মনে করে। নিরাপত্তায় ভারতকে খাটো করে দেখার ক্ষমতা নেই।


মহাকাশ গবেষণায় সাফল্যের সঙ্গে কাজ হয়েছে মোদীর জমানায়।


কোনও দুর্নীতি নেই এই সরকারের। উদাহরণ তৈরি করেছে মোদী সরকার।


বিশ্বে শক্তিধর দেশ হিসাবে এগিয়ে চলেছে ভারত।

আরো পড়ুন

Advertisement