LATEST UPDATE

পাঁচ দফার ভোটেই কংগ্রেস ও তাদের সহযোগীরা হাল ছেড়ে দিয়েছে, ফতেহাবাদে বার্তা প্রধানমন্ত্রীর

ফতেহাবাদ (হরিয়ানা), ৮ মে (এ.এন.ই): উনিশের লোকসভা নির্বাচনের প্রথম পাঁচ দফার ভোটগ্রহণ ইতিমধ্যেই অতিক্রান্ত। এখনও দু’দফার ভোটগ্রহণ বাকি রয়েছে। কিন্তু, পাঁচ দফার ভোটগ্রহণ অতিক্রান্ত হতেই লোকসভা নির্বাচনে লড়াইয়ের হাল ছেড়ে দিয়েছে কংগ্রেস ও তাদের সহযোগীরা। বুধবার হরিয়ানার ফতেহাবাদের নির্বাচনী জনসভায় এমনই দাবি করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। প্রধানমন্ত্রীর কথায়, ‘এখন, সমস্ত কিছুই কাচের মতো পরিষ্কার। দেশের জনগণের আশীর্বাদে, ২৩ মে বিকেলে ভোটের ফলাফল যখন প্রকাশ্যে আসবে, ফের ক্ষমতায় আসতে চলেছে মোদী সরকার।’ প্রধানমন্ত্রী আরও বলেছেন, ‘‘কংগ্রেস এবং তাদের সহযোগীরা হাল ছেড়ে দিয়েছে, দিল্লিতে ‘খিচুড়ি ও মজবুর সরকার’গঠনের অভিপ্রায় ভেঙে গিয়েছে।’’ প্রতিরক্ষাকে আরও শক্তিশালীকরণ প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, ‘প্রতিরক্ষা শক্তিশালীকরণ ছাড়া, কোনও দেশ কি বিশ্বের মধ্যে শক্তিশালী হতে পারে?কংগ্রেস অথবা মহাভেজাল দলগুলির কেউ কি কখনও প্রতিরক্ষাকে শক্তিশালী করার বিষয়ে কোনও কথা বলেছেন? এক্ষেত্রে তাঁদের পূর্ববর্তী ইতিহাসের কারণে প্রতিরক্ষা বিষয়ে তাঁরা কিছুই বলতে পারবে না। ফতেহাবাদের নির্বাচনী জনসভায় প্রধানমন্ত্রী আরও বলেছেন, ‘কৃষকদের যাঁরা লুট করেছে তাঁদের আদালত পর্যন্ত নিয়ে গিয়েছে আপনাদের এই চৌকিদার। তারা এখন এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)-এর চক্কর কাটছে এবং জামিন নিচ্ছে।’ নাম না করেই কংগ্রেসকে কটাক্ষ করে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, ‘তিনি নিজেকে শাহেনশা মনে করতেন, কিন্তু এখন বিচলিত। আমি ইতিমধ্যেই তাঁকে জেলের দরজা পর্যন্ত নিয়ে গিয়েছি। আমাকে আশীর্বাদ করুন এবং আগামী পাঁচ বছরের মধ্যে তাঁকে জেলে ঢুকিয়ে দেব।’

আরো পড়ুন

Advertisement