35.31 C
Clouds



এই খবরের কোনো ভিডিও নেই |

ভয়াবহ পরিস্থিতি নেপাল ও মালদ্বীপের, নিজের সংকটের মধ্যেও প্রতিবেশীদের পাশে ভারত।

আন্তর্জাতিক



May 17, 2021, 4:57 p.m.
করোনা আতঙ্কে গোটা বিশ্ব যখন আতঙ্কিত তখন বাদ যায়নি ভারতের পার্শ্ববর্তী দেশ নেপাল। দেশটির করোনা রোগীর সংখ্যা দিন দিন কিন্তু বৃদ্ধি পাচ্ছে। এ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে দেশের ডাক্তাররা। গত মাস থেকে নেপালে করোনা সংখ্যা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছিল। বর্তমানে ভয়াবহ পরিস্থিতির মধ্যে রয়েছে নেপাল। সেদিকেও লক্ষ্য রাখছে ভারত সরকার। প্রতিবেশী দেশে করোনা যে ভাবে ভয়াবহ রূপ ধারণ করেছে সেখানে ভারত সাহায্যের হাত না বাড়ালে বিপদ যে আরও বাড়বে তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।পরিসংখ্যান বলছে, গত কয়েকদিন নেপাল, মালদ্বীপ ও বাংলাদেশের করোনা পরিস্থিতির ব্যাপক অবনতি হয়েছে। সবথেকে ভয়বহ অবস্থা নেপাল ও মালদ্বীপের। সেখানে নতুন মাত্রায় চোখ রাঙাচ্ছে ডাবল মিউট্যান্ট করোনা। এমনকী শুধুমাত্র মালদ্বীপে পজেটিভিটির মাত্রা ৬০ শতাংশ ছাড়িয়েছে বলে জানা যাচ্ছে। নেপালে বর্তমানে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ১ লক্ষের গণ্ডি পার করে ফেলেছে। সম্পূর্ণ ভাবে ভেঙে পড়েছে স্বাস্থ্য পরিকাঠামো। সঙ্গে করোনা টেস্ট ও অক্সিজনের জোগানও ঘোরতর সঙ্কটের মুখে। এমনকী দেশের মোট ৭৭ টি জেলার মধ্যে ইতিমধ্যেই ৫৫ টি জেলায় থাবা বসিয়েছে করোনা। এমতাবস্থায় ভারতের সাহায্য ছাড়া তা যে কার্যত অসম্ভব তা আর বলার অপেক্ষা রাখে। তাই নিকটতম প্রতিবেশীদের পাশে দাঁড়াতে করোনা টিকা পাঠাচ্ছে ভারত। যদিও নিজ দেশেই টিকা সঙ্কটের মুখে কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্ত নিয়ে জোনরোষ তৈরি হলেও সরকারের কাছে আর কোনও রাস্তাই খোলা নেই বলে মনে করা হচ্ছে। এমনকী এই সঙ্কটকালীন পরিস্থিতিতে এই অঞ্চলের সবথেকে বড় শক্তি হিসাবে নিজের দায়বদ্ধতার কথাও মনে করাতে চাইছে ভারত সরকার। কিছুদিন আগে বাংলাদেশ কেউ ভ্যাকসিন দিয়ে সাহায্য করেছে ভারত সরকার। যদিও বর্তমানে নিজের দেশেই ভ্যাকসিনের সংকট। এমন অবস্থায় ঘরে এবং বাইরে কিভাবে চাপ সামলাবে ভারত সরকার সেদিকেই তাকিয়ে বিশেষজ্ঞ মহল।


পক্ককপাতিত্ব নয়, সোজা সাপ্টা খবর |

© Copyright, 2021 Agartala News Express. All Rights Reserved. Developed and Maintained by Chevichef Private Limited.

Images published in the Image Gallery are subjected to Copyright of the photographer under The Copyright Act, 1957 of the Republic of India. Any unauthorized use of any image is prohibited.