20.06 C
Rain



এই খবরের কোনো ভিডিও নেই |

চলতি বছরের প্রথম চন্দ্রগ্রহণ হতে চলেছে আজ

আন্তর্জাতিক



May 26, 2021, 6:12 p.m.
আগরতলা, ২৬/০৫/২০২১ (এ.এন.ই. প্রতিনিধি) :- এবছরের প্রথম চন্দ্রগ্রহণ দেখা যাবে ২৬ই মে শুধু তাই নয়, এদিন চন্দ্রের পূর্ণ গ্রহণ দেখা যাবে বলে আশা করছেন বিজ্ঞানীরা। সেই সঙ্গে আরও একটি দুর্লভ মহাজাগতিক দৃশ্য সংঘটিত হতে চলেছে। পৃথিবীর সব চেয়ে কাছে চলে আসায় চাঁদ হবে ২০২১ সালের সব চেয়ে নিকটস্থ এবং সর্ববৃহৎ পূর্ণচন্দ্র বা সুপারমুন ২০১৯ সালের জানুয়ারি মাসের পর আজ আবারও বিরল মহাকাশ দৃশ্যের সাক্ষী থাকবে পৃথিবীবাসী। তাৎপর্য পূর্ণভাবে, প্রায় ছয় বছরে সুপারমুন এবং পূর্ণ চন্দ্রগ্রহণ একসঙ্গে হয়নি। আসলে চাঁদ যে পথে পৃথিবীর চারপাশে ঘোরে, তা পুরোপুরি গোলাকার নয়, অনেকটা দেখতে উপবৃত্তাকার। ফলে পৃথিবীর চারিদিকে ঘুরতে ঘুরতে চাঁদ কখনও পৃথিবীর কাছে চলে আসে, আবার কখনও পৃথিবীর থেকে দূরে চলে যায়। পৃথিবীকে আবর্তের চাঁদের কক্ষপথে একটা সময় এমন আসে যখন চাঁদ ও পৃথিবীর মধ্যে গড় দূরত্ব কমে হয় ৩৬০,০০০ কিমি, যাকে জ্যোতির্বিজ্ঞানের পরিভাষায় বলা হয় পেরিজি। অন্য দিকে, যখন এই দুই গ্রহ ও উপগ্রহের মধ্যে সব চেয়ে বেশি দূরত্ব বেড়ে হয় ৪,০৫,০০০ কিমি, তখন তাকে বলা হয় অ্যাপোজি। এবার চাঁদের কক্ষপথে চাঁদ যখন পৃথিবীর খুব কাছে চলে আসে এবং একইসঙ্গে পূর্ণ চাঁদ থাকে তখন পৃথিবী থেকে চাঁদকে শুধু উজ্জ্বলই দেখায় না, স্বাভাবিক পূর্ণ চাঁদের তুলনায় অনেক বড়ও দেখায়। NASA-র সূত্রে জানা গিয়েছে, ১৯৭৯ সালে জোর্তিষী রিচার্ড নোল্লে সুপারমুন কথাটির প্রচলন করেন। একটি সাধারণ বছরে, দু'টি থেকে চারটি পূর্ণ সুপারমুন থাকতে পারে। প্রায় এক মাস আগে ২৬ এপ্রিল, আরও একটি পূর্ণিমা ছিল, তবে আজ যে সুপারমুনটি দেখা যাবে তা পৃথিবীর সঙ্গে ০.০৪ শতাংশের ব্যবধানে কাছাকাছি থাকবে। ২৬ মে, দু'টি মহাজাগতিক ঘটনা একসঙ্গে ঘটবে। সুপারমুনের সঙ্গে হবে পূর্ণ চন্দ্রগ্রহণ যেখানে চাঁদ ও সূর্য পৃথিবীর বিপরীত দিকে থাকে। পূর্ণ চন্দ্রগ্রহণের কারণে, যেহেতু পৃথিবী, চাঁদে সূর্যের আলো পৌঁছাতে বাধা দেয় এবং পৃথিবীর বায়ুমণ্ডল সূর্যের আলো পরিস্রুত করে, তাই চাঁদকে গোলাপি আভায় লাল দেখায়। বুধবার সকালে, চাঁদ পৃথিবীর বিপরীত দিকে থাকবে এবং পুরো আলোকিত হবে। কেন্দ্রীয় দিবালোকের সময় (CDT)-এর সকাল ৬ টা ১৩ মিনিটে অর্থাৎ ভারতীয় স্ট্যান্ডার্ড সময় (IST)-তে ভোর ৪ টের সময়ে ঘটনাটি ঘটবে৷ আকাশ পরিষ্কার থাকলে সমগ্র পৃথিবীর মানুষ সারা রাত ধরে সুপারমুন দেখতে পারবে৷ যা গভীর রাতে বা ভোরের দিকেই সব চেয়ে ভালো দেখা যাবে। NASA জানিয়েছে, চন্দ্রগ্রহণ প্রত্যক্ষ করা খুব একটা সহজ হবে না। তবে চাঁদ যখন পৃথিবীর ছায়ায় চলবে অর্থাৎ আংশিক চন্দ্রগ্রহণ, সেটা কিছু কিছু জায়গায় দেখা যাবে। ভারত, নেপাল, পশ্চিম চিন, মঙ্গোলিয়া এবং রাশিয়ার পূর্ব দিকে সন্ধ্যায় আকাশে চাঁদ ওঠার ঠিক পরে আংশিক চন্দ্রগ্রহণ লক্ষ্য করা যেতে পারে।


পক্ককপাতিত্ব নয়, সোজা সাপ্টা খবর |

© Copyright, 2021 Agartala News Express. All Rights Reserved. Developed and Maintained by Chevichef Private Limited.

Images published in the Image Gallery are subjected to Copyright of the photographer under The Copyright Act, 1957 of the Republic of India. Any unauthorized use of any image is prohibited.